‘মাদার অব এডুকেশন’ উপাধি শেখ হাসিনাকে

0

সরকারি চাকরিতে বিদ্যমান কোটা প্রথা বাতিল করায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে ধন্যবাদ জানিয়ে ‘মাদার অব এডুকেশন’ উপাধি দিয়েছেন কোটা পদ্ধতি সংস্কারের দাবিতে আন্দোলনকারীদের সংগঠন সাধারণ ছাত্র অধিকার পরিষদের কেন্দ্রীয় কমিটির নেতারা।

আজ বৃহস্পতিবার বেলা সাড়ে ১১টায় রাজু ভাস্কর্যের সামনে সংবাদ সম্মেলনে কমিটির যুগ্ম-আহ্বায়ক নুরুল হক এ উপাধি দেন।

এ সময় তিনি জানান, কোটা সংস্কার আন্দোলন স্থগিত ঘোষণা করেন আন্দোলনরত শিক্ষার্থীরা। একই সঙ্গে দ্রুত সময়ের মধ্যে গেজেট প্রকাশ ও মামলা প্রত্যাহার করে নিতে হবে।

বিজ্ঞাপন

এছাড়া ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসির বাসভবনে হামলায় জড়িতদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার দাবি জানান তিনি।

কোটা সংস্কারের দাবিতে শিক্ষার্থীদের আন্দোলনের মুখে ক্ষুব্ধ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গতকাল বুধবার জাতীয় সংসদে কোটা ব্যবস্থা বাতিলের কথা বলেন। প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘কোটা নিয়ে যখন এতকিছু, তখন কোটাই থাকবে না। কোনো কোটারই দরকার নেই, যারা প্রতিবন্ধী ও ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠী তাদের আমরা অন্যভাবে চাকরির ব্যবস্থা করে দেব।’

শেখ হাসিনা বলেন, ‘কোটা থাকলেই সংস্কারের প্রশ্ন আসবে। এখন সংস্কার করলে আগামীতে আরেক দল আবারও সংস্কারের কথা বলবে। কোটা থাকলেই ঝামেলা। সুতরাং কোনো কোটা পদ্ধতিরই দরকার নেই। কোটা ব্যবস্থা বাদ, এটাই আমার পরিষ্কার কথা।’

তিনি আরও বলেন, ‘যদি (কোটা রাখার) দরকার হয় ক্যাবিনেট সেক্রেটারি তো আছেই। তাকে তো আমি বলেই দিয়েছি, সংশ্লিষ্টদের নিয়ে কমিটি বসে কাজ করবে। সেখান থেকে তারা দেখবে।’

Comments

comments

বিজ্ঞাপন